কান্ত চক্রবর্তীর ওপর হামলার ঘটনায় অপরাধীদের দ্রুত গ্রেফতারের দাবি জানিয়েছেন কাজী ইরাদত আলী

 Posted on


রাজবাড়ী প্রতিনিধি
রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার জমিদার ব্রীজ এলাকায় সোমবার রাত সাড়ে ৭ টার দিকে গোয়ালন্দের কাউন্সিল অনুষ্ঠানের দায়িত্বপ্রাপ্ত জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক প্রদীপ্ত চক্রবর্তী কান্তকে পিটিয়ে আহত ও তার বহনকারী গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন রাজবাড়ী জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক কাজী ইরাদত আলী।
এক বিবৃতিতে কাজী ইরাদত আলী উল্লেখ করেন, সাংগঠনিক দায়িত্ব হিসেবে প্রদীপ্ত চক্রবর্তী কান্ত গোয়ালন্দ উপজেলা ও পৌর আওয়ামী লীগের কাউন্সিল অনুষ্ঠানের দায়িত্বপ্রাপ্ত হিসেবে গত ৮ জুলাই একটি প্রাইভেট কার (ঢাকা মেট্রো গ-১৭-৭৮২৭) যোগে পৌরসভার ২ নং ওয়ার্ডের সম্মেলন শেষে সঙ্গীয় মোঃ আলাউদ্দিন সহ রাজবাড়ী ফেরার পথে সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টার দিকে গোয়ালন্দ -ফরিদপুর সড়কের জমিদার ব্রীজ (ভিক্টর ফিডস লিমিটেড) এর সামনে পৌছলে একটি পিকআপ ভ্যান তাদের গতিরোধ করে। এসময় ৮/১০ টি মোটর সাইকেলযোগে ১৫-২০ জন অস্ত্রধারী তাদেরকে পূর্বপরিকল্পিতভাবে হত্যার উদ্দেশ্যে আক্রমন করে। সন্ত্রাসীরা তাদের হাতে থাকা হাতুরী দিয়া পিটাইয়া গাড়ীর সামনের গ্লাসসহ দরজা জানালার কাঁচ ভাঙ্গিয়া হাতুরী দিয়া খুন করার উদ্দেশ্যে ক্রমাগত আঘাত করিয়া গুরুতর ফোলা জখম করে এবং এলোপাথারীভাবে শরীরের বিভিন্ন স্থানে উপুর্যপুরি আঘাত করে। সন্ত্রাসীরা হাতুরি দিয়া তার সঙ্গীয় আলাউদ্দিনকে হত্যার উদ্দেশ্যে মাথা লক্ষ্য করিয়া আঘাত করিলে সে বাম হাত দিয়া ঠেকাইতে চেষ্টা করিলে তাহার বাম হাতের কবজি থেকে কাঁধ পর্যন্ত হাতুরী দিয়া বাড়াইয়া ৩/৪ টি হাড়ভাঙ্গা গুরুতর রক্তাক্ত ফোলা জখম হয়। এ ঘটনায় ইতোমধ্যে গোয়ালন্দ থানায় মামলা দায়ের হলেও এখনও কেউ গ্রেফতার হয়নি।
এ ধরনের ন্যাক্কারজনক ঘটনার নিন্দা জানিয়ে কাজী ইরাদত আলী অবিলম্বে দোষী ব্যক্তিদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবী জানান।

Facebook Comments